ক্যারিয়ার গড়ুন ফ্রিল্যান্সিং এ

সৈয়দা মুনিয়া জান্নাত ।

ফ্রিল্যান্সিং শব্দটি স্ট্যান্ডার্ড একটি শব্দ |এর অর্থ বুঝতে গেলে আগে শব্দটির গভীরে প্রবেশ করতে হবে | ফ্রিল্যান্সিং মানে হচ্ছে “মুক্তপেশা” | মানে একজন ফ্রিল্যান্সার আর মুক্তপাখির মাঝে পার্থক্য খুব কম | মুক্তপাখি যেমন স্বাধীনভাবে আকাশপথে বিচরণ করে ঠিক তেমনই একজন ফ্রিল্যান্সারও দুশ্চিন্তাবিহীন স্বাধীনভাবে মুক্তপেশার রাজ্যে দক্ষতা নামক পাখার  দ্বারা সাফল্যের উচ্চ শিখরে দ্রুত পৌঁছে যায় |

বাংলাদেশে এখন পর্যন্ত মানুষ ফ্রিল্যান্সিংকে সহজভাবে গ্রহণ করতে পারছেনা কারন তারা বোকার স্বর্গে বাস করছে |সীমাহীন ভুল ধারণা মানুষের আগ্রহ ফ্রিল্যান্সিংয়ের প্রতি বহুগুনে কমিয়ে দেয় | বাস্তব কিছু উদাহরণ দেই তবেই ক্লিয়ার হবে আসলে ফ্রিল্যান্সিং কি !একজন শিক্ষক কিন্তু স্বেচ্ছায় ছাত্রছাত্রী পড়ান আবার মাঝেমাঝে কিছু স্টুডেন্ট পড়ানো ছেড়ে দেন,পড়ানোটা হচ্ছে এখানে শিক্ষকের মুক্তপেশা কারন স্বাধীনভাবে সে তার কাজে নিয়োজিত দক্ষতার দ্বারা  দিনশেষে  হালালভাবে আয় করছে ! শিক্ষক এখানে ফ্রিল্যান্সার |

একইভাবে,একজন লেখক ও কিন্তু ফ্রিল্যান্সার কারন সে তার মস্তিষ্কের পুঞ্জীভূত দক্ষতার দ্বারা স্বাধীনভাবে বই লিখে লাখলাখ পাঠকের মনে স্থান করে নিচ্ছে , বাজারে বই বের করে  হালালভাবে অসীম টাকা ইনকাম করছে | ফ্রিল্যান্সারদের কাজে হস্তক্ষেপ করার কেউ থাকেনা , পরিপূর্ণ স্বাধীনতা নিয়ে কাজ করে তারা তাদের গন্তব্যে পৌঁছে যায় |

খুববেশি ধৈর্য্যের বীজ বপন করতে হয় প্রতিনিয়ত ফ্রিল্যান্সারদের হৃদয়ের বাগানে | কারন অসীম ধৈর্য্য না থাকলে এই ফিল্ডে টিকে থাকা কষ্টকর |অনলাইনে ফ্রিল্যান্সিং হচ্ছে বাইরের  দেশ থেকে ক্লায়েন্টরা নিজেদের চাহিদা অনুযায়ী কাজ অফার করলে ইচ্ছাশক্তি ও কাজ করার মানসিকতা থাকলে  মাথাঠান্ডা রেখে দক্ষতা ও ধৈর্য্যকে সাথী করে তাদের কাজ করে দিয়ে ফ্রিল্যান্সাররা কর্মক্ষেত্রে আকাশচুম্বী সাফল্য অর্জন করে নিমিষেই | অনলাইনের মাধ্যমে বাসায় বসে যেকোনো সময় কর্মক্ষেত্রে বিচরণ করে ফ্রিল্যান্সাররা | ফ্রিল্যান্সারদের  নিখুঁত কাজ খুবদ্রুত তাদের আয়ের পরিমাণ হাজারগুন বাড়িয়ে দেয় |

বাংলাদেশে বর্তমানে বেকারের সংখ্যা প্রচুর বৃদ্ধি পেয়েছে | অর্থনৈতিক মন্দার কারনে অধিকাংশ  চাকরির বাজার তরুণপ্রজন্মকে ডিপ্রেশনের অতল তলে তলিয়ে দিচ্ছে | তাই,হতাশ না হয়ে বিকল্প আয়ের উৎসের সন্ধান করতে হবে | এক্ষেত্রে ফ্রিল্যান্সিংয়ের জুড়ি নেই |ফ্রিল্যান্সিংয়ের মাধ্যমে ক্যারিয়ার গড়া সহজ কিন্তু আগ্রহ থাকতে হবে |

পরিশেষে বলতে চাই,যারাই মুক্তপেশাকে ভালোবাসেন তারা এখন থেকেই দৃঢ়সংকল্পবদ্ধ হয়ে ফ্রিল্যান্সিং নিয়ে প্রচুর পড়াশোনা করতে চেষ্টা করুন | আপনার নিজের চেষ্টাই আপনাকে সাফল্যের তীরে পৌঁছাতে সক্ষম | গুগল , ইউটিউব এ যেয়ে ফ্রিল্যান্সিং নিয়ে ঘাটাঘাটি করুন | নির্ভরযোগ্য ভালো কোথাও পারলে কোর্স করুন |

সাফল্যের গন্তব্যে পৌঁছাতে হলে প্রতিনিয়ত স্বপ্ন দেখতে হবে,ক্লান্ত হয়ে গেলে কিন্তু চলবেনা | কোনোভাবেই সময় নষ্ট করা যাবেনা | নিজেকে ব্যস্ততার জালে বন্দি করে ফেলতে হবে , তবেই কেউ ক্যারিয়ার নিয়ে হতাশ হবেন না বলে আশা রাখি |কর্মক্ষেত্রে নিয়ত সৎ রেখে কাজ করতে থাকুন আশানুরূপ ফল পাবেনই  ইনশাআল্লাহ  !

পছন্দের আরো পোস্ট