নারী স্বাস্থ্য সচেতনতায় কাজ করছে ‘উইথ সি’

মেয়েদের ঋতুকালীন স্বাস্থ্যবিধি বাড়াতে কাজ শুরু করেছে স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন ‘উইথ সি’। এ সংগঠনের সঙ্গে যুক্ত রয়েছে কিশোর কিশোরীসহ নানা শ্রেণি পেশার মানুষ। গতকাল শুক্রবার রাত ৯ টায় অনলাইন প্রযুক্তি জুম অ্যাপে ঘণ্টাব্যাপী উইথ ডক্টর’স লাইভ অনুষ্ঠানের আয়োজন করেন তারা। অনুষ্ঠানে ঋতুচক্রের নানা প্রশ্নের উত্তর ও পরামর্শ দেন ডা. সায়মা আসাদ।

‘২০২০ সালে এসেও নারীদের জড়তা রয়ে গেছে। পিরিয়ড চলাকালীন তাদের নানা প্রতিক‚লতার মধ্যে দিয়ে যেতে হয়। সমাজের ভিন্ন দৃষ্টিভঙ্গি আমাদের দমিয়ে রেখেছে। তাই আমাদের সকলকে এগিয়ে আসতে হবে। সচেতনতা বাড়াতে হবে। তবেই আমরা কাঙ্খিত লক্ষ্যে পৌঁছাতে পারবো।’

‘আমাদের স্বাস্থ্য, আমাদের অধিকার। বাড়াবো সচেতনতা, আনবো পরিবর্তন’ স্লোগানে কাজ করছে সংগঠনের দায়িত্বশীলরা। ২০২৪ সালের মধ্যে দেশের শতভাগ মানুষকে প্রজনন স্বাস্থ্যবিধি সম্পর্কে সচেতন করা তাদের লক্ষ্য। সার্বিক সহযোগিতায় রয়েছে বেঙ্গল এইড, প্রোজেক্ট বনলতা, আগুয়ান-৭১, সোশ্যালিকা এবং এন্টি রেপ স্কোয়াড বাংলাদেশ।

 

উল্লেখ্য, কোভিড-১৯ সংক্রমণের শুরু থেকে জরুরি প্রয়োজনে ফেইসবুক পাতা ও নির্দিষ্ট হটলাইনের মাধ্যমে নারীর জরুরি প্রয়োজনে স্যানিটারি ন্যাপকিন পৌঁছে দিচ্ছে উইথ সি। এছাড়াও দেশজুড়ে নারীর প্রজনন স্বাস্থ্য নিয়ে সচেতনতা তৈরি করতে অনলাইন ও অফলাইনে কার্যক্রম পরিচালনা করে শহর এবং গ্রামের সকল মানুষের মাঝে উদারতা বৃদ্ধিতে কাজ করছে সংগঠনটি। -খবর বিজ্ঞপ্তি।

পছন্দের আরো পোস্ট