করোনা টেস্টিং ল্যাব পুনরায় চালুসহ সাত দাবি ঢাবি সাদা দলের

ঢাবি প্রতিনিধি।

করোনা উদ্ভূত পরিস্থিতিতে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় পরিবারের জন্য ব্যবস্থা নিতে একগুচ্ছ প্রস্তাব দিয়েছেন বিএনপিপন্থী সাদা দলের শিক্ষকরা। এই প্রস্তাবে বন্ধ হয়ে যাওয়া করোনা টেস্টিং ল্যাব পুনরায় চালু, মেডিক্যাল সেন্টারকে ২০ শয্যায় উন্নীতকরণ, দ্রুত সেবা নিশ্চিতে বিশেষায়িত হাসপাতালের সঙ্গে সমঝোতা স্মারক, দ্রুত অ্যাম্বুল্যান্স সেবা ও বিনা মূল্যে টেলিমেডিসিন সেবা প্রদানসহ একগুচ্ছ দাবি রয়েছে।

 

মঙ্গলবার সাদা দলের শিক্ষকদের পক্ষে উপাচার্য ড. আখতারুজ্জামানের কাছে দেওয়া এক চিঠিতে বলা হয়, ‘বাংলাদেশে উদ্ভূত দুর্যোগ ক্রমশ ভয়াবহ পরিস্থিতির দিকে ধাবিত হচ্ছে। প্রতিদিনই বাড়ছে আক্রান্ত ও মৃত্যুর সংখ্যা। ইতিমধ্যে কর্মরত একজনসহ আমরা কয়েকজন সাবেক সহকর্মীকে হারিয়েছি। আক্রান্ত হয়েছেন সহকর্মীসহ বিশ্ববিদ্যালয় পরিবারের আরো কয়েকজন। কভিডসংক্রান্ত প্রাত্যহিক পরিসংখ্যান পর্যালোচনায় স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞরা আশঙ্কা করছেন সামনের দিনগুলোতে পরিস্থিতি আরো ভয়াবহ হতে পারে। এ অবস্থায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় পরিবারের সদস্যদের মধ্যে আতঙ্ক, অনিশ্চয়তা ও নিরাপত্তাহীনতা বোধ বৃদ্ধি পাচ্ছে। এ সংকটকালে ইতিমধ্যে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃক গৃহীত কিছু ফলপ্রসূ ও কার্যকর উদ্যোগ আমরা লক্ষ করেছি। তবে বর্তমান পরিস্থিতিতে বিশ্ববিদ্যালয়ের পক্ষ থেকে জরুরি ভিত্তিতে আরো কিছু সুনির্দিষ্ট উদ্যোগ ও কর্মপরিকল্পনা গ্রহণ করা সময়ের দাবি বলে আমরা মনে করি।’

 

সাদা দলের শিক্ষকদের দাবিগুলো হচ্ছে—সেন্টার ফর অ্যাডভান্সড রিসার্চ ইন সায়েন্সেস ভবনে স্থাপিত অত্যাধুনিক পিসিআর ল্যাবে পুনরায় করোনা পরীক্ষা চালু করা; ক্যাম্পাসে বা ক্যাম্পাসের বাইরে বসবাসকারী বিশ্ববিদ্যালয় পরিবারের কারো কভিড-১৯-এর উপসর্গ দেখা দিলে দ্রুত তা পরীক্ষার জন্য ল্যাবের সঙ্গে একটি স্যাম্পল কালেকশন বুথ স্থাপন করা।

পছন্দের আরো পোস্ট