বইমেলায় আলো ছড়ালো “ছড়ায় ছড়ায় আলোর রেশ”

অমর একুশে গ্রন্থমেলা ২০১৮ তে প্রকাশিত হয়েছে নাজমা পারভিন’র শিশুতোষ ছড়ার বই ‘ ছড়ায় ছড়ায় আলোর রেশ’ । প্রকাশের পর থেকেই অভিভাবকদের নজর কেড়েছে বইটি । গতকাল (১০ ফেব্রুয়ারী) শনিবার মোহাম্মদ নুরূল করিম নামের এক অভিভাবক ফেসবুক টাইমলাইনে লিখেছেন -“রাঙাছুটু যখন পড়তে শিখবে , আমার দৃঢ় বিশ্বাস ওর বাবার শত শত বইয়ের মধ্য থেকে ও এই বইটা অনেক ভালোবাসা নিয়ে পড়বে ; আমি ওকে এই বইটা পড়তে উৎসাহ দিবো ।

বইটা ওদের জন্য লিখা হয়েছে । আঠাশ টা ছড়া , প্রতিটি ছড়া রাঙাছুটুদের মানবিক বিকাশে সহায়তা করবে । প্রতিটি ছড়ার সাথে চমৎকার ছবি দেওয়া আছে যা ছড়াটিকে অর্থবহ করে তুলছে এবং বুঝতে সহায়তা করছে ।”

এরকম আরো কয়েকজন শিশু ও অভিভাবক বইটির প্রশংসা করেন ।

ছড়াকার নাজমা পারভিন তাঁর এই বই সম্পর্কে বলেন,” শিশুরাই  দেশের ভবিষ্যৎ। অথচ আমাদের দেশে শিশুদের পাঠযোগ্য বই এর সংখ্যা সীমিত। পরীক্ষা নামক ভয়াবহ যন্ত্রনায় হাপিত্যেশ করছে আমাদের শিশুরা। যন্ত্র নিয়ে খেলা আর পাঠ্য বইয়ের চাপে আমাদের নতুন প্রজন্ম পাঠবিমুখ হয়ে যাচ্ছে। তারা যা কিছুই পড়ছে তা কেবল ভাল মার্কস পাওয়ার জন্য । এই পাঠে আনন্দ নেই। শিশু যেন পাঠে আনন্দ পায় সেদিকে লক্ষ্য রেখেই রচিত হয়েছে বইটি। ছড়ায় ছড়ায় শিশু পাবে রূপকথার গল্পের স্বাদ। তার কচিমন চলে যাবে কল্পলোকের সেই অচিন দেশে।

শুধু কল্পনাবিলাস নয়, ছন্দে ছন্দে শিশু যেন শিখে ফেলতে পারে প্রয়োজনীয় তথ্য তারও চমৎকার আয়োজন আছে বইটিতে। প্রাথমিক বিজ্ঞান বই থেকে পানিচক্র শিখতে যে শিশু গলদঘর্ম হয়, সে অনায়াসেই ‘পানিচক্র” ছড়াটি পড়ে শিখে নিতে পারবে বিষয়টি। বৈচিত্র্যময় বাংলাদেশের প্রতিটি ঋতুর বৈশিষ্ট্য উঠে এসেছে ‘ঋতু’ নামক ছড়াটিতে। এই বইয়ে কোন প্রকার দম্ভ না করা, পরোপকারী হওয়া , নিয়মতান্ত্রিক জীবন গড়ার শিক্ষা যেমন পাবে তেমনি সরস ছন্দে রচিত প্রতিটি ছড়া পাঠে শিশু পাবে অনাবিল আনন্দ। সচেতন অভিভাবক ও সর্বস্তরের শিশুদের কাছে অনবদ্য এ বইটি সমাদৃত হবে বলেই আমাদের প্রত্যাশা।”

কবি পরিচিতি
নাজমা পারভিন। মাগুরা জেলার নিভৃত পল্লীতে বেড়ে ওঠা এই কবির প্রথম প্রকাশিত গ্রন্থ ‘অদ্ভূত এইসব হালচাল’। ২য় কাব্যগ্রন্থ ‘দূরবাসিনী’র পর এই বই তার ৩য় প্রকাশনা। অর্থনীতির মত নীরস বিষয়ে পড়াশুনা অতঃপর কর বিভাগের চাকরি ।

এরপরও তাঁর সাহিত্য চর্চা চলছে নিয়মিত । লিখেছেন গল্পও । প্রখ্যাত কথা সাহিত্যিক সেলিনা হোসেন এর সাথে যৌথ গল্পের বইয়ে মলাটবদ্ধ হয়েছে তাঁর লেখা গল্প। ভালবাসেন মানুষকে । মানুষ আর প্রকৃতিই তাঁর লেখার বিষয়বস্তু ।

সরল আর প্রাঞ্জল ভাষায় লেখা তাঁর কবিতা ও ছড়া বুঝতে পাঠককে শ্রম দিতে হয়না। তাই সহজেই পাঠকের মনে ঠাই করে নিতে পেরেছেন এই কবি।

পছন্দের আরো পোস্ট