বইমেলায় ‘কংক্রিটের অরণ্যে স্রোতস্বীনি নদী’

এবারের বইমেলায় ইয়োগা আর্টিস্ট আশরাফুন নাহার লিউজার যে বইটা প্রকাশিত হচ্ছে, তার বিষয়বস্তুকে একটু ভীন্নধর্মীই বলতে হবে। ভ্রমণ সাহিত্য বলা চলে, আবার এর মধ্যে আছে এক ধরণের জীবনধারা। আমেরিকার সৌন্দর্য, এখানকার মানুষ, দর্শনীয় স্থান ও জীবনের গভীরবোধ বইটির বিষয়। বইটির বেশিরভাগটা জুড়ে প্রাধান্য পেয়েছে প্রকৃতি। আমেরিকার বৈচিত্রময় ঋতু পরিবর্তনে চোখের সামনে সবকিছু বদলে যায়। সে অনুযায়ী মানুষের জীবনযাত্রাও বদলায়। চলতে থাকে নানা ধরণের উৎসব আয়োজন।

লেখিকার কথা

আমেরিকার প্রকৃতিকে আমি ভীষণভাবে ভালোবেসে ফেলেছি। ভালোবেসে ফেলেছি দেশটাকেও। আর একের পর এক সাজানো অনুভূতির বিস্তারই হচ্ছে আমার এই বইটি। ২০টি লেখা আছে এতে। বইটির নাম দেয়া হয়েছে, ‘কংক্রিটের অরণ্যে স্রোতস্বীনি নদী’। বইটি আমি উৎসর্গ করেছি, সেইসব শিশুকে যারা বেড়ে উঠছে প্রকৃতিন নিবীড় মমতায়। অবহেলিত শিশুদের জন্যে কিছু একটা করার ইচ্ছা আছে আমার। বইটি বিক্রি থেকে যা কিছু আয় হবে, তা খরচ করার ইচ্ছা বাংলাদেশের পথশিশুদের জন্যে।

নামটি যখন ভেবেছি, এর মধ্যে অপূর্ব একটি কবিতার উপকরণ দেখতে পেয়েছি আমি। এই লাইনটি আমেরিকার জন্যে খুবই প্রযোজ্য। দেশটির অপূর্ব রূপ ঐশ্বর্যই যেন ফুটে উঠেছে কথাটিতে। মূলত: নিউইয়র্ক শহরটির কথা চিন্তা করেই নামটি এসেছে মাথায়। কিন্তু এদেশের যে শহরেই আপনি যাবেন, দেখতে পাবেন রূপের পসরা কাকে বলে! পাহাড়, নদী, সাগর আর বনাঞ্চল; কি নেই। আকাশটাও যেন অদ্ভূত সুন্দর।

আর বড় শহরগুলোয় রয়েছে সারি সারি সুউচ্চ দালান। সেই দালানগুলোকেই আমি বলছি, ‘কংক্রিটের অরণ্য’। কেননা পাশাপাশি দাঁড়িয়ে থাকা ভবনগুলোকে দেখতে ভালো লাগে, মন ছুঁয়ে যায়। সেই কংক্রিটের অরণ্যেও এখানে নদী আছে। বাধাহীন অবিরাম বয়ে চলেছে স্রোতস্বিনী সেই নদীগুলো। টলটলে স্বচ্ছ তার পানি। কোথাও নদীকে মেরে ফেলার কোন প্রচেষ্টা নেই। প্রতীকী অর্থে এই একটি নামেই আমার পুরো বইটির মর্মার্থ লুকিয়ে রয়েছে।

ইয়োগা আর্টিস্ট আশরাফুন নাহার লিউজা। অনেকদিন ধরেই তিনি কাজ করছেন ইয়োগা, ফিটনেস ও লাইফস্টাইল বিষয়ে। ২০১৪ সালের ১১ এপ্রিল ঢাকায় গড়ে তোলেন লিউজা’স ইয়োগা নামে একটি প্রতিষ্ঠান। এই প্রতিষ্ঠানটি গড়ে তোলা হয়েছিল বিশেষত নারীদের জন্যে।

বর্তমানে তিনি যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্কে বসবাস করছেন। সেখানেও ইয়োগা আর্টিস্ট হিসেবে কাজের স্বকীয় ধারা ধরে রেখেছেন। তবে এর বাইরে লিউজা জনপ্রিয় একজন কবি ও লেখক। কবিতায় তার নিজস্ব ভঙ্গিমা রয়েছে। যা পাঠককে মুগ্ধ করে। সেই সাথে প্রবন্ধ, ভ্রমণ ও লাইফস্টাইল বিষয় নিয়ে লেখেন।

ঢাকা ও নিউ ইয়র্কের বিভিন্ন গণমাধ্যমে নিয়মিত প্রকাশিত হচ্ছে তার লেখা। লেখালেখির বাইরে উপস্থাপনা করেন। বিভিন্ন টেলিভিশনে তার উপস্থাপনায় অনুষ্ঠান দর্শকরা খুব পছন্দ করেন। আশরাফুন নাহার লিউজার জন্ম রংপুরের সুন্দর একটি গ্রাম রহিমাপুরে। পড়াশোনা করেছেন তারাগঞ্জ গার্লস হাইস্কুল, ঢাকা উদয়ন কলেজে। পরে স্ট্যামফোর্ড ইউনিভার্সিটিতে পড়েছেন ইংরেজি সাহিত্যে।

পছন্দের আরো পোস্ট