সেবার মধ্যেই পরম সুখ

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের সরকার ও রাজনীতি বিভাগে আজ সকাল ১১টায় সিআরপি’র প্রতিষ্ঠাতা ও সমন্বয়কারী ভেলরি এ. টেইলর তাঁর বক্তৃতায় বলেছেন, পক্ষাঘাতগ্রস্তদের সেবায় তিনি বাংলাদেশে থেকে যাওয়ার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছেন। তিনি মনে করেন অসুস্থ মানুষের সেবা করার মধ্যদিয়ে শ্রষ্টার সন্তুষ্টি লাভ করা যায়।

সেবার মধ্যেই পরম সুখ আছে। ভেলরি এ. টেইলর বলেন, পক্ষাঘাতগ্রস্তদের সেবা এবং তাদের পুনর্বাসনের জন্য তিনি সিআরপি প্রতিষ্ঠা করেছেন। তিনি আরো বলেন, বাংলাদেশের মানুষ এবং বাংলাদেশের বাইরে বিভিন্ন পর্যায়ের ব্যক্তি, সংগঠন এবং রাষ্ট্রীয় সহযোগিতা সিআরপি প্রতিষ্ঠায় বড় ধরনের প্রেরণা যুগিয়েছে। সকলের সহযোগিতা এবং সহমর্মিতায় সিআরপি এখন প্রসারিত হয়েছে।

বাংলাদেশের কয়েকটি জায়গায় সিআরপির শাখা খোলা হয়েছে। এতে মানুষের দ্বারে সেবা পৌঁছে দেয়া সহজ হচ্ছে। সরকার ও রাজনীতি বিভাগের সভাপতি ড. শামসুন্নাহার খানমের সভাপতিত্বে বিভাগের শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ্যে দেয়া বক্তৃতায় ভেলরি এ. টেইলর আরো বলেন, চিকিৎসা সেবার পাশাপাশি সিআরপি ফিজিও থেরাপির গ্র্যাজুয়েশন কোর্স চালু করেছে।

এর ফলে বিশেষায়িত চিকিৎসায় দক্ষ চিকিৎসকের সংখ্যা বৃদ্ধি পাচ্ছে। ভেলরি এ. টেইলর তাঁর বক্তৃতায় বাংলাদেশে তাঁর আগমন এবং সিআরপি প্রতিষ্ঠার নানা ধাপ তুলে ধরেন। তিনি পক্ষাঘাত হওয়ার নানাবিধ কারণের পরিসংখ্যান তুলে ধরে বলেন, মানুষ সচেতন হলে দুর্ঘটনাজনিত কারণে পক্ষাঘাত হওয়া থেকে নিজেকে মুক্ত রাখতে পারে।

অনুষ্ঠানে বিভাগীয় সভাপতি তাঁর বক্তৃতায় ভেলরি এ. টেইলরের জীবনী তুলে ধরেন।

পছন্দের আরো পোস্ট