পুরস্কৃত হলো সন্ধানীর ছয় ইউনিট

সন্ধানী কেন্দ্রীয় পরিষদের আয়োজনে ও সন্ধানী ঢাকা মেডিকেল কলেজ ইউনিটের সহযোগিতায় দেশের সরকারি-বেসরকারি ২১টি ইউনিট নিয়ে গত ২০অক্টোবর ঢাকা মেডিকেল কলেজে অনুষ্ঠিত হয় ৩৭তম সন্ধানী কেন্দ্রীয় ষাণ্মাসিক সভা-২০১৭। “রূধির লালে বাঁচবে প্রাণ, হোক শীত কিবা গ্রীষ্ম; নেত্রহীনে আমার চোখে দেখবে সারা বিশ্ব” স্লোগানকে সামনে রেখে উদ্ভোধনী অনুষ্ঠানে ২০১৬-২০১৭ সেশনে বিভিন্ন সেবামূলক কাজের স্বীকৃতিস্বরূপ পুরস্কৃত করা হয় সন্ধানীর ছয়টি ইউনিটকে।

সন্ধানী ঢাকা মেডিকেল কলেজের সভাপতি আব্দুল্লাহ আল মাঈদের উপস্থাপনায় উদ্ভোধনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ডা. কামরুল হাসান খান, চট্টগ্রাম মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ডা. ইসমাইল খান, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক মো. আলী আজগর মোড়ল, ঢাকা মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ ডা. খান আবুল কালাম আজাদ, ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল এ কে এম নাসির উদ্দিন, সন্ধানী কেন্দ্রীয় পরিষদের সভাপতি শাহপরান ইসলাম প্রবাল, সাধারণ সম্পাদক রিদওয়ান জুবায়ের রিয়াদ এবং সন্ধানী জাতীয় চক্ষুদান সমিতির সভাপতি অধ্যাপক এ.কে.এম সালেক এবং মহাসচিব ডা: জয়নাল আবদিন।

সন্ধানীর মূল লক্ষ্যে স্থির থেকেই সন্ধানীয়ানদের সামনে এগিয়ে যেতে হবে উল্লেখ করে অধ্যাপক ডা. কামরুল হাসান খান বলেন, “আমাদের এই পেশা মানুষের সেবা করা ছাড়া আর কিছুই শিখায় না। মানুষের প্রতি ভালোবাসা আর মানব সেবার অসীম ইচ্ছের পাশাপাশি পরীক্ষায় অনেক ভালো ফলাফল করেই আজ দেশের স্বাস্থ্যখাতের নেতৃত্ব দিচ্ছে সন্ধানীয়ানরা। এই ধারা অবশ্যই অব্যাহত রাখতে হবে।”

অনুষ্ঠানে ২০১৬-২০১৭ সেশনে বিভিন্নখাতে সর্বোচ্চ সেবামূলক কাজের জন্য পুরষ্কার পায় সন্ধানীর ৬টি ইউনিট। সর্বোচ্চ স্বেচ্ছায় রক্তদানের মাধ্যমে সংগৃহীত রক্তের জন্য সন্ধানী চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ ইউনিট, সর্বোচ্চ বিনামূল্যে ওষুধ সরবারহের জন্য সন্ধানী সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ ইউনিট, সর্বোচ্চ ফ্রি রক্তের গ্রুপ নির্ণয়ের জন্য সন্ধানী গণস্বাস্থ্য সমাজ ভিত্তিক মেডিকেল কলেজ ইউনিট, সর্বোচ্চ টিকাদানের জন্য সন্ধানী রংপুর মেডিকেল কলেজ ইউনিট, সর্বোচ্চ সংখ্যক রক্তদানে উদ্ভোদ্ধকরণ অনুষ্ঠানের জন্য সন্ধানী স্যার সলিমুল্লাহ মেডিকেল কলেজ ইউনিট এবং বিশেষ কার্যক্রমের (বিশেষ সামাজিক কার্যক্রম) জন্য সন্ধানী ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ ইউনিট।

সন্ধানী কেন্দ্রীয় পরিষদের সভাপতি শাহপরান ইসলাম প্রবাল সকল ইউনিটকে ধন্যবাদ জানিয়ে বলেন, “প্রতিজন সন্ধানীয়ানের তুলনা তারা নিজেরাই। তাদের দিনরাত এক করা পরিশ্রমের মূল্য দেওয়া সম্ভব না।” সাধারণ সম্পাদক রিদওয়ান জুবায়ের রিয়াদ বলেন,প্রতিটি ইউনিট মানবসেবার প্রতিটি খাতে অকল্পনীয় ভূমিকা পালন করে যাচ্ছে। শুধুমাত্র পুরষ্কার সংখ্যা নির্দিষ্ট বলেই আমাদের ছয়টি ইউনিটকে পুরস্কৃত করতে হয়েছে।”

পছন্দের আরো পোস্ট