সাদার্ন ইউনিভার্সিটিতে ১৯তম উদ্যোক্তা কার্নিভাল

সমসাময়িক ফ্যাশন এ প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে সাদার্ন ইউনিভার্সিটিতে অনুষ্ঠিত হলো দুই দিনব্যাপী ১৯তম উদ্যোক্তা কার্নিভাল ও ব্যবসা পরিকল্পনা প্রতিযোগিতা-২০১৭।

ব্যবসায় প্রশাসন বিভাগের উদ্যোগে একাডেমিক কোর্সের অংশ হিসেবে জাতিসংঘের একাডেমি ইমপেক্টের অংশ ও অনুপ্রেরণায় সম্প্রতি ইউনিভার্সিটির ক্যাম্পাসে এই উদ্যোক্তা কার্নিভালের আয়োজন করা হয়। কার্নিভালের সমাপণী দিনে প্রধান অতিথি ছিলেন বিজেএমইএ’র প্রথম সহ-সভাপতি মো. নাসির উদ্দিন চৌধুরী । প্রথম দিন কার্নিভালের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন সাদার্ন ইউনিভার্সিটির উপাচার্য প্রফেসর ড. মো. নুরুল মোস্তফা।

আরও উপস্থিত ছিলেন সাদার্ন ইউনিভার্সিরি উদ্যোক্তা ও প্রতিষ্ঠাতা প্রফেসর সরওয়ার জাহান, প্রো-ভিসি প্রফেসর ইঞ্জিনিয়ার এম আলী আশরাফ, ব্যবসায় প্রশাসন অনুষদের ডিন প্রফেসর ড. আ,ন.ম আব্দুল মোক্তাদীর, সাবেক উপাচার্য ও আইকিউএসি’র পরিচালক প্রফেসর এজেএম নুরুদ্দীন চৌধুরী, ব্যবসায় প্রশাসন বিভাগের প্রধান ড. ইসরাত জাহান, মেলার প্রধান সমন্বয়কারী ও সহকারি অধ্যাপক রেহেনুমা সুলতানা খান, প্রতিযোগিতার বিচারক সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব আহমেদ নেওয়াজ এবং ইনস্টিটিউট অব ফ্যাশন অ্যান্ড টেকনোলজি(ভোগ)’র সিইও ও প্রিন্সিপাল মনসুর আলম, বিভিন্ন বিভাগের শিক্ষকবৃন্দসহ শিক্ষার্থীরা।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে মো. নাসির উদ্দিন চৌধুরী বলেন, সাধারণত শিক্ষার্থীদের ডিগ্রি অর্জনের উদ্দেশ্য থাকে একটা ভালো চাকরী কিন্তু সাদার্ন শিক্ষার্থীদের এই আয়োজন একটু ব্যতিক্রম কারণ তাদের প্রচেষ্টা উদ্যোক্তা হওয়া। একজন ভালো উদ্যোক্তা হাজারো কর্মসংস্থানের সুযোগ তৈরি করে যা আগামী প্রজন্মের জন্য সত্যি ইতিবাচক দিক। মনের মধ্যে অধম্য ইচ্ছা ও সুষ্টিশীলতা থাকলে উদ্যোক্তা হওয়ার কাঙ্খিত স্বপ্ন বাস্ততে রূপ নেয়। আশা করি তোমরা আগামীতে উদ্যোক্তা হয়ে দেশের প্রতিনিধিত্ব করে উন্নয়ন ও অগ্রতিতে ভূমিকা রাখবে।

প্রফেসর সরওয়ার জাহান বলেন, মনের স্বপ্নকে বাস্তবায়ন করতে হবে প্রচেষ্টা ও অধ্যবসায়ের মাধ্যমে। উদ্যোক্তা হওয়ার স্বপ্নের মাঝে অনেক দুঃস্বপ্ন আসবে। পুঁিজ, প্রতিকূলতা, সমালোচনাসহ সব বাধা সাহসিকতার সাথে মোকাবেলা করে তবেই লক্ষ্যে পৌঁছতে হবে। মনে রাখবে তুমি নিজেকে যেখানে দেখতে চাও সেটাই তোমার ভবিষ্যৎ।

অন্যান্য অতিথিরা বলেন, তরুণরাই আগামীর বাংলাদেশ, তাদের হাত ধরে এগিয়ে যাবে দেশের অর্থনীতি। সৃষ্টিশীলতার মাধ্যমে নতুন নতুন ব্যবসার প্রসার ঘটাতে হবে। তরুণ শিক্ষার্থীরা যদি উদ্ভাবনী শক্তির মাধ্যমে দেশে নতুন নতুন ব্যবসার প্রসার ঘটাতে পারে তাহলে কর্মস্থানের চাপ অনেকাংশে কমে যাবে।

মূলত ব্যবসার প্রসার ও তরুণ উদ্যোক্তা তৈরির লক্ষ্যে সাদার্ন ইউনিভার্সিটির ব্যবসায় প্রশাসন বিভাগ প্রতি সেমিস্টারে এ ধরনের মেলার আয়োজন করে থাকে বলে জানান মেলার আয়োজক কমিটির সদস্যরা। এবার মেলায় বিবিএ ৪৭তম ও ৪৮ তম ব্যাচের প্রায় ১৪০ জন শিক্ষার্থী ২১টি স্টলে তাঁদের নিজেদের আইডিয়া থেকে তৈরিকৃত বিভিন্ন পণ্য সামগ্রী প্রদর্শন করেন। মেলার সমাপণী দিনে চার ক্যাটাগরিতে সেরা স্টলসহ অংশগ্রহণকারী শিক্ষার্থীদের পুরস্কৃত করা হয়। ভিভো লেদার সেরা স্টলের পুরস্কার লাভ করে। পরে ব্যান্ড সংগীতের মনোমুগ্ধকর পরিবেশনায় কার্নিভালের সমাপ্তি হয়।

পছন্দের আরো পোস্ট