চবি সমাজ বিজ্ঞান গবেষণা ইনস্টিটিউটে সেমিনার

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় সমাজ বিজ্ঞান গবেষণা ইনস্টিটিউটের উদ্যোগে আজ (১৬ সেপ্টেম্বর) শনিবার চট্টগ্রাম শহরস্থ চ.বি. চারুকলা ইনস্টিটিউট মিলনায়তনে ‘একবিংশ শতকে বাংলাদেশের গণমাধ্যম : সন্ধিক্ষণ ও সম্ভাবনা’ শীর্ষক একটি জাতীয় সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়। এ সেমিনারে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে ভাষণ দেন চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের মাননীয় উপাচার্য প্রফেসর ড. ইফতেখার উদ্দিন চৌধুরী।

উপাচার্য তাঁর ভাষণে একটি অত্যন্ত জনগুরুত্ব ও তাৎপর্যপূর্ণ বিষয়ে জাতীয় সেমিনার আয়োজন করায় আয়োজকবৃন্দকে ধন্যবাদ ও অভিনন্দন জানিয়ে বলেন, গণমাধ্যম তথা প্রিন্ট, ইলেকট্রনিক মিডিয়া ও অনলাইন নিউজ পোর্টাল আধুনিক জীবনের অপরিহার্য সঙ্গী। গণতান্ত্রিক যে-কোনো সমাজ ও রাষ্ট্রে গণমাধ্যম সুস্থ গণতান্ত্রিক সমাজের দর্পণ।

আধুনিক সমাজ-সভ্যতার ইতিহাস পর্যালোচনার করলে এটাই সুস্পষ্ট যে জ্ঞান-বিজ্ঞানের যথার্থ বিকাশ ও মানবিক সমাজ-সভ্যতা প্রতিষ্ঠায় গণমাধ্যমের রয়েছে অসামান্য অবদান। একবিংশ শতকে জ্ঞান-বিজ্ঞান ও তথ্য-প্রযুক্তি অবাধ প্রবাহের কল্যাণে বিশ্ব পরিমন্ডলে গণমাধ্যম এখন অত্যন্ত সক্রিয় এবং শক্তিশালী, এ প্রেক্ষাপটে বাংলাদেশের গণমাধ্যমের কার্যক্রম আলোচনা-পর্যালোচনা একটি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ বিষয়।

সমাজ সন্ধিক্ষণ বিশ্লেষণ, পর্যালোচনা এবং সমাজকে সঠিক পথে এগিয়ে নিতে গণমাধ্যমের উপস্থাপনা যেমনটি হতে হবে সত্যানুন্ধানী, নৈতিক এবং বস্তুুনিষ্ট, তেমনটি সর্বস্তরের জনগণকে হতে হবে সচেতন। সত্য-সুন্দর-কল্যাণ-আনন্দ এই ৪টি মৌলিক নির্যাসকে ধারণ করে একুশ শতকে বাংলাদেশে গণমাধ্যমসমূহ হয়ে ওঠবে জনগণের প্রকৃত বন্ধু এটাই প্রত্যাশিত। আজকের সেমিনারে মূল্যবান উপস্থাপনা, জ্ঞানগর্ভ আলোচনা-পর্যালোচনার মাধ্যমে সঠিক দিক নির্দেশনা পাওয়া যাবে মাননীয় উপাচার্য এ আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

চবি সমাজ বিজ্ঞান ডিন ও সমাজ বিজ্ঞান গবেষণা ইনস্টিটিউটের পরিচালক প্রফেসর ড. ফরিদ উদ্দিন আহামেদের সভাপতিত্বে সেমিনারে প্রধান আলোচক হিসেবে বক্তব্য রাখেন মহামান্য রাষ্ট্রপতির জেষ্ঠ্যপুত্র গণমাধ্যম ব্যক্তিত্ব মাননীয় সংসদ সদস্য প্রকৌশলী রেজওয়ান আহাম্মেদ তৌফিক এবং রিসোর্স পার্সন হিসেবে বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ অন-লাইন সাংবাদিকতার পথিকৃৎ বাংলা নিউজ টোয়েন্টিফোর.কম-এর এডিটর ইন চীফ জনাব আলমগীর হোসেন।

সেমিনারে প্যানেল আলোচক হিসেবে বক্তব্য রাখেন চ.বি. বাংলা বিভাগের সভাপতি প্রফেসর ড. মহীবুল আজিজ, রাজনীতি বিজ্ঞান বিভাগের প্রফেসর ড. মাহফুজ পারভেজ এবং যোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের প্রফেসর ড. মোহাম্মদ সহিদ উল্যাহ। অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন চ.বি. নৃবিজ্ঞান বিভাগের সহকারী অধ্যাপক জনাব নাছরিন আক্তার। সেমিনারে চ.বি. বিভিন্ন বিভাগের শিক্ষক-গবেষকবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

পছন্দের আরো পোস্ট