২৬০০০ শিক্ষক নিয়োগ হবে এক বছরের মধ্যে

parliamentআদালতের নির্দেশনা অনুসারে আগামী এক বছরের মধ্যে অপেক্ষমান ২৬,০০০ শিক্ষক নিয়োগ সম্পন্ন করা হবে বলে জানিয়েছেন প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রী মোস্তাফিজুর রহমান (ফিজার)।রবিবার সকালে জাতীয় সংসদে প্রস্তাবিত ২০১৬-১৭ অর্থ বছরের বাজেটের ওপর সাধারণ আলোচনায় অংশ নিয়ে মন্ত্রী একথা জানান।এরআগে সকাল ১০টা ৪২ মিনিটে স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরীর সভাপতিত্বে দিনের কার্যসূচি শুরু হয়।

প্রস্তাবিত বাজেটে বরাদ্দ নিয়ে তিনি বলেন, অনেকে বলেন বাজেটে বরাদ্দ কম হয়েছে। কিন্তু আসলে তা নয়। আমাদের প্রাথমিকে গত অর্থবছরে বরাদ্দ ছিল সাড়ে ১৩,০০০ কোটি টাকা। এবার বরাদ্দ প্রায় সাড়ে ২২,০০০ কোটি। শিক্ষা ও প্রাথমিক শিক্ষা মন্ত্রণালয় মিলে গত বছরে বরাদ্দ ছিল ৩২,০০০ কোটি টাকা, এবার তা বেড়ে প্রায় ৫৮,০০০ কোটি টাকা করা হয়েছে।

 

মন্ত্রী বলেন, এ দু’বছরে নতুন করে ২২,০০০ শিক্ষক নিয়োগ দিয়েছি। আরো প্রায় ২৬,০০০ শিক্ষক যেটা বন্ধ ছিল আদালতের নির্দেশনা অনুসারে এক বছরের মধ্যেই নিয়োগ সম্পন্ন করে ফেলবো।

 

এছাড়া আগামী ২০১‌৮ সালের মধ্যে কোনো জরাজীর্ণ ও গাছের নীচে পাঠদানের মতো কোনো বিদ্যালয় থাকবে না বলে জানান মন্ত্রী। এরজন্য প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেওয়া হচ্ছে। মন্ত্রী বলেন, আমাদের প্রাথমিক স্কুল গুলোর চ্যালেঞ্জ হল মানসম্পন্ন শিক্ষা। সেই চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় শিক্ষকদের ট্রেনিং দেওয়া হচ্ছে।

 

তিনি বলেন, এখন পর্যন্ত যে সব  প্রাথমিক বিদ্যালয় অষ্টম শ্রেণী পর্যন্ত করা হয়েছে, সেগুলোসহ যেখানে যে অবস্থায় আছে সেগুলো প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের তত্ত্বাবধানে চলবে।

 

পছন্দের আরো পোস্ট