একমুখী শিক্ষাব্যবস্থা প্রণয়ণ দাবিতে স্মারকলিপি

01দেশে শিক্ষা ব্যবস্থার সব মাধ্যমে প্রাথমিক ও মাধ্যমিক স্তর পর্যন্ত ‘একমুখী শিক্ষা’ তথা একই পাঠ্যসূচি নিশ্চিত করার দাবিতে প্রধানমন্ত্রী বরাবর স্মারকলিপি দিয়েছে নাগরিক সমাজের একটি অংশ। বৃহস্পতিবার বিকালে ‘সম্মিলিত সামাজিক আন্দোলন’র ব্যানারে প্রায় ৫০ হাজার মানুষের স্বাক্ষর সম্বলিত এই স্মারকলিপি প্রধানমন্ত্রী কার্যালয়ে পৌঁছে দেওয়া হয়।

 

এর আগে এই সামাজিক সংগঠনের নেতাকর্মীরা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় টিএসসির স্বোপার্জিত স্বাধীনতা চত্বরে গণজমায়েতে মিলিত হন এবং পরে শোভাযাত্রাসহ শাহবাগ পর্যন্ত যান। এরপর সামাজিক আন্দোলন আহ্বায়ক প্রবীণ রাজনীতিক অজয় রায়ের নেতৃত্বে পাঁচ সদস্যের একটি প্রতিনিধিদল তেজগাঁওয়ে প্রধানমন্ত্রী কার্যালয়ে যায়।

 

শিক্ষাব্যবস্থার অসঙ্গতি দূরীকরণের জন্য সরকারের কাছে পাঁচটি দাবি তুলে ধরা হয়। দাবিগুলো হল : সংবিধানের সাথে সঙ্গতি রেখে অবিলম্বে বৈষম্যহীন শিক্ষাব্যবস্থা প্রচলনের জন্য কার্যকর পদক্ষেপ গ্রহণ। প্রাথমিক ও মাধ্যমিক স্তর এবং সমপর্যায়ের অভিন্ন শিক্ষা কার্যক্রম পাঠসূচি নিশ্চিতকরণে কার্যকর পদক্ষেপ গ্রহণ এবং সব স্তরে কর্মমুখী শিক্ষা চালু করা। কোমলমতি ছাত্র-ছাত্রীদের মধ্যে দেশপ্রেম জাগ্রত করার জন্য কর্ম দিবসের শুরুতে জাতীয় সংগীত গাওয়া এবং জাতীয় পতাকা উত্তোলন বাধ্যতামূলক করা এবং আইন অমান্যকারীদের শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নিশ্চিত করা। সর্বশেষ দাবি সাম্প্রদায়িক ও জঙ্গি তৎপরতা কঠোর হস্তে দমন এবং উগ্র সাম্প্রদায়িক রাজনীতি নিষিদ্ধ ঘোষণাপূর্বক তাদের সম্পদ জাতীয়করণ করা।

টিএসসির গণজমায়েতে স্মারকলিপি পড়ে শোনান সংগঠনের সভাপতিশণ্ডলীর সদস্য আবদুল মতিন ভূঁইয়া।

 

 

 

সমাবেশে অন্যদের মধ্যে সামাজিক আন্দোলনের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য অধ্যাপক নূর মোহাম্মদ তালুকদার, আবু মোনায়েম নেহেরু, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক আজিজুর রহমান উপস্থিত ছিলেন।#

 

লেখাপড়া২৪.কম/আরএইচ

পছন্দের আরো পোস্ট