ইবির বাসে ভাংচুর

IUইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের (ইবি) নিজস্ব বাসে ভাংচুর চালিয়েছে দুর্বৃত্তরা। বুধবার রাত আটটার দিকে ঝিনাইদহের আরাপপুরে এ ভাংচুরের ঘটনা ঘটে। এতে কোন হতাহতের খবর পাওয়া যায়নি। এঘটনার পেছনে চাকরি প্রত্যাশী গ্রুপের ইন্ধন রয়েছে বলে বিভিন্ন সূত্রে জানা গেছে।

 

বিশ্ববিদ্যালয়ের পরিবহন অফিস সূত্রে, বুধবার রাত আটটার দিকে কর্মকর্তাদের বহনকারী বিশ্ববিদ্যালয়ের নিজস্ব বাস “পদ্মা” ঝিনাইদহ শহরের আরাপপুরে পৌছলে দূর্বৃত্তরা হামলা করে। এসময় তারা বাসের সমল যাত্রীকে নামিয়ে তাতে ভাংচুর চালায়। এঘটনায় কোন যাত্রী হতাহত না হলেও বাসের বেশ ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে বলে জানা গেছে।

 

এদিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের পরিবহন প্রশাসক প্রফেসর ড. মামুনুর রহমান, বাস না চালানোর জন্য বুধবার সন্ধ্যার পর থেকে আমাকে মোবাইল ফোনে কয়েকবার হুমকি দেয়া হয়। ঝিনাইদহ বাস মালিক সমিতির কর্তৃপক্ষ ও বাসের চালকদেরও নানা ভাবে মোবাইলে হুমকি দেয়া হয়েছে বলে আমার কাছে অভিযোগ এসেছে। হুমকি আসার কিছুক্ষনের মধ্যেই ঝিনাইদহ শহরের বিশ্ববিদ্যালয়ের নিজস্ব একটি বাস ভাংচুরের শিকার হয়েছে।

 

কে বা কারা হুমকি দিয়েছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, নাম্বারগুলো বন্ধ পাওয়া যাচ্ছে। তবে হুমকিদাতাদের কথা শুনে মনে হয়েছে বিশ্ববিদ্যালয়ের সাথে স্বার্থ সংশ্লিষ্ট কোন দাবি তাদের আছে। তবে আমার ধারণা ভুলও হতে পারে।’

 

এ ব্যাপারে প্রক্টর প্রফেসর ড. মাহবুবর রহমান বলেন, মোবাইল ফোনে হুমকিদাতাদের সনাক্তকরণের কাজ চলছে। অপরাধী যেই হোক না কেন তাকে আইনের আওতায় আনার জন্য সর্বোচ্চ চেষ্টা করা হবে।

 

লেখাপড়া২৪.কম/আরএইচ

পছন্দের আরো পোস্ট