চবি শিক্ষকদের অনির্দিষ্টকালের কর্মরিতির ডাক

teacherচট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে (চবি) ৩ জানুয়ারি থেকে অনির্দিষ্টকালের সর্বাত্বক কর্মবিরতির ডাক দিয়েছে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়(চবি) শিক্ষক সমিতি। প্রকাশিত অষ্টম জাতীয় বেতন কাঠামোর গেজেটে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকদের আশ্বাসের প্রতিফলন না হওয়ায়এ কর্মসূচি ঘোষনা করেছে চবি শিক্ষক সমিতি।

 

বুধবার বিকালে এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে চবি শিক্ষক সমিতির সভাপতি প্রফেসর ড. মোঃ আবুল মনছুর এবং সাধারণ সম্পাদক ড. কাজী এস. এম. খসরুল আলম কুদ্দুসীর এ কর্মসূচির ঘোষণা দেন।

 

বিবৃতিতে তারা বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকদের প্রদত্ত অষ্টম জাতীয় বেতন কাঠামোতে সপ্তম জাতীয় বেতন কাঠামোর অনুরূপ সিলেকশন গ্রেড ও টাইম স্কেল বহাল রাখা হয়েছে।

 

এছাড়াও সপ্তম জাতীয় বেতন কাঠামোতে বিদ্যমান সুযোগ-সুবিধা না কমানো ও অষ্টম জাতীয় বেতন কাঠামোতে সিনিয়র সচিবদের জন্য যে সুপার গ্রেড সৃষ্টি করা হয়েছে এতে সিলেকশন গ্রেড প্রাপ্ত অধ্যাপকদের মধ্য থেকে একটি অংশকে উন্নীত করার আশ্বাস এর প্রতিফলন না হওয়ায় শিক্ষক সমাজ ব্যাপক ক্ষোভ ও অসন্তোস প্রকাশ করছে।

 

বিবৃতিতে আরো বলা হয় দীর্ঘ নয় মাস শান্তিপূর্ন কর্মসূচির মাধ্যমে শিক্ষক সমাজ তাদেও দাবি তুলে ধরেছে।
এমতবস্থায় দাবি আদায় লক্ষ্যে বিশ্ববিদ্যালয়ের ফেডারেশনের সর্বসম্মতিক্রমে নিজেদের দাবি আদায়ের জন্য আগামী ৩ জানুয়ারী (কমপ্লিট শাটডাউন) কর্মসূচি পালন করবে । এ সময় সকল প্রকার একাডেমিক ও প্রশাসনিক কার্যক্রম বন্ধ থাকবে বলে জানানো হয়।

 

এ ব্যাপারে চবি শিক্ষক সমিতির সভাপতি প্রফেসর ড. মোঃ আবুল মনছুর জানান, আমরা দীর্ঘ নয় মাস শান্তিপূর্ন কর্মসূচির মাধ্যমে আন্দোলন করে আসছি। আমাদের দাবি পূরণ না হওয়া পর্যন্ত সর্বাত্বক কর্মবিরতি পালন করা হবে।

 

তিনি আরো বলেন,এ সময় সকল প্রকার একাডেমিকর কার্যক্রম ও ক্লাস,পরীক্ষা বন্ধ থাকবে।#

 

 

লেখাপড়া২৪.কম/চবি/কাইয়ুম/আরএইচ

পছন্দের আরো পোস্ট