এমবিএ করুন মার্চেন্ডাইজিং বিষয়ে

ক্যারিয়ার গঠনে একটি ফলপ্রসূ প্রশিক্ষণ কোর্স গার্মেন্টস বায়িং অ্যান্ড মার্চেন্ডাইজিং। সেলাইয়ের কাটিং ও মেকিং ইত্যাদির মান অন্যান্য দেশের তুলনায় অনেক ভালো থাকায় বিশ্বে আমাদের দেশের সুখ্যাতি রয়েছে। ফলে বেড়ে চলেছে গার্মেন্টস, বায়িং হাউস, ফ্যাশন হাউসসহ পোশাকশিল্প সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠানের সংখ্যা। পাশাপাশি গার্মেন্টস, বায়িং এবং মার্চেন্ডাইজিং সম্পর্কিত প্রশিক্ষিত লোকের চাহিদাও বাড়ছে ব্যাপক। শুধু দেশে নয়, বর্তমান বিশ্ববাজারে পোশাক শিল্পের বিপুল চাহিদার কারণে অন্যসব পেশার চেয়ে এ পেশায় চাকরি পাওয়াটা বেশ সহজও বটে। একেকটি পোশাক শিল্প এবং বায়িং হাউসে প্রচুর পরিমাণে দক্ষ লোক নিয়োগ করা হয়। বিশ্বের বিভিন্ন দেশে এ পেশাদারদের উচ্চ বেতনে কর্মসংস্থানের সুবিধা রয়েছে। এসব প্রেক্ষাপটে এ পেশার ব্যাপক দক্ষ জনবল চাহিদার কারণে আমাদের দেশেই গড়ে উঠেছে বেশ কিছু শিক্ষা ও প্রশিক্ষণ প্রতিষ্ঠান। যেহেতু পেশাকশিল্পের এ পেশাটি সম্পূর্ণ টেকনিক্যাল ওয়ার্ক বা বাস্তবভিত্তিক কাজ, তাই এ সেক্টরে প্রশিক্ষণ ব্যতীত চাকরি পাওয়াটা বেশ দুষ্কর। তাই যত তাড়াতাড়ি সম্ভব প্রশিক্ষণ নিয়ে চাকরি পাওয়ার ভিত্তিটা শক্ত করাটাই হবে বুদ্ধিমানের কাজ ।marchandiser
গার্মেন্টস, বায়িং হাউস, মার্চেন্ডাইজিং পেশা সংশ্লিষ্ট সব কিছুই শেখানো হয়েছে এর বিভিন্ন কোর্সে। কোর্সের উল্লেখযোগ্য বিষয়গুলো হচ্ছে_ এক্সপোর্ট, ইমপোর্ট, বায়িং পলিসি, ইন্ডেন্টিং, ব্যাংক, কাস্টমস, ডিইডিও, ইপিবি, বিজিএমআই, শিপিং, এলসি, ডকুমেন্টেশন, জিএসপি, কোটা, গার্মেন্টসে প্রোডাকশন (ওভেন, নিট, সোয়েটার ), কোয়ালিটি কন্ট্রোলিং ফেব্রিকস, মার্চেন্ডাইজিং প্রোডাকশন প্ল্যানিং, মার্কেটিং এবং ই-মেইল, ইন্টারনেটসহ পোশাকশিল্পের আনুষঙ্গিক বিভিন্ন প্রশিক্ষণ প্রদান করা হয়। বৃহৎ এই শিল্পটিতে প্রায় ৫০ লাখ লোক বিভিন্ন পদে চাকরি করছেন। এ ছাড়া রয়েছে বায়িং হাউস, সোয়েটার ফ্যাক্টরি, টেক্সটাইল ইন্ডাস্ট্রি এবং কোয়ালিটি কন্ট্রোল প্রতিষ্ঠান, ফ্যাশন ডিজাইন হাউস।
গার্মেন্টস, বায়িং এবং মার্চেন্ডাইজিং প্রশিক্ষণপ্রাপ্তরা উপযুক্ত প্রতিষ্ঠানগুলোতে নিম্নলিখিত বিভিন্ন পদে চাকরি পাওয়া যাবে। ক্ষেত্রগুলো হলো_ জেনারেল ম্যানেজার, মার্চেন্ডাইজিং, প্রোডাকশন ম্যানেজার, ফ্লোর ইনচার্জ, কোয়ালিটি কন্ট্রোলার, কোয়ালিটি কো-অর্ডিনেটর, কোয়ালিটি ইন্সপেক্টর, টেকনিক্যাল ডিরেক্টর, কমার্শিয়াল ম্যানেজার, অ্যাসিসট্যান্ট প্রোডাকশন ম্যানেজার, কোয়ালিটি কন্ট্রোল ম্যানেজার, সুপারভাইজার, প্রোডাকশন কো-অর্ডিনেট ইত্যাদি। পেশাকেন্দ্রিক প্রশিক্ষণপ্রাপ্তরা প্রশাসনিক পর্যায়ে ১০ হাজার থেকে শুরু করে ৫০ হাজার টাকা পর্যন্ত বেতন পেয়ে থাকেন। কোর্স শেষে রয়েছে পারফরমেন্সের ভিত্তিতে দ্রুত পদোন্নতির সুযোগ। বেতনের পাশাপাশি রয়েছে ওভারটাইম এবং পোশাক প্রাপ্তির সুবিধা। জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনে আমাদের দেশে পোশাকশিল্পে ক্যারিয়ার গড়তে ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অব ফ্যাশন টেকনোলজি এবং মার্চেন্ডাইজিংয়ে উচ্চতর ডিগ্রি প্রদানের জন্য অনার্স, এমবিএসহ বিভিন্ন মেয়াদি সার্টিফিকেট ও ডিপ্লোমা কোর্স চালু হয়েছে। এর কোর্সগুলোতে বিশেষ সুবিধা রয়েছে। দরিদ্র, মেধাবী, মুক্তিযোদ্ধা, খেলোয়াড় ও প্রতিবন্ধী কোটায় স্কলারশিপের সুযোগ রয়েছে।
যোগাযোগ : ১৪৬, ওয়্যারলেস গেট, মহাখালী, ঢাকা।
ফোন : ০১৭৩১২২০০৯৯, ০১৯৭১০০৭৭৭৭।

 

স:আরএইচ

পছন্দের আরো পোস্ট